অনূর্ধ্ব-১৯ ক্রিকেট বিশ্বকাপজয়ী বাংলাদেশ দলকে মিরপুর শের-ই-বাংলা ক্রিকেট স্টেডিয়ামে লালগালিচা সংবর্ধনা দেয়া হয়েছে। বিসিবি কার্যালয় থেকে স্টেডিয়ামে নেমে আসার পথে আগে থেকেই বিছানো ছিল লাল গালিচা।

আন্তর্জাতিক ম্যাচ শেষে যে জায়গায় পুরস্কার বিতরণ করা হয়, সেখানে রাখা ‘ওয়ার্ল্ড চ্যাম্পিয়ন’ লেখা ব্যাকড্রপ। যার ঠিক সামনেই টেবিলে সাজানো ‘বিশ্বচ্যাম্পিয়ন’ লেখা কেক।

আকবর আলিরা লাল গালিচা দিয়ে সেই জায়গায় পৌঁছার পর আনা হয় বিশ্বকাপের ট্রফিটি। এরপর বিসিবি সভাপতি নাজমুল হাসান পাপন আর বাংলাদেশ যুব দলের বিশ্বকাপজয়ী অধিনায়ক আকবর আলি একসঙ্গে ট্রফি উঁচিয়ে অংশ নেন ফটোসেশনে।

দুই কেকের মাঝখানে রাখা হয় ট্রফিটি। তারপরই কেক কেটে উদযাপন। কনফেত্তি আর আলোর ঝলকানিতে উৎসবমুখর এক পরিবেশ শেরেবাংলায়।

এর আগে বুধবার অনূর্ধ্ব-১৯ বিশ্বচ্যাম্পিয়নরা দেশে ফেরেন। বিকেল ৪টা ৫৫ মিনিটে দেশের মাটিতে পা রাখার পর বিমানবন্দর থেকে সোজা তাদের নিয়ে আসা হয় মিরপুর শেরে বাংলা জাতীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামে। সেখানে রাত ৮টায় সংবাদ সম্মেলনে আসেন বিসিবির সভাপতি নাজমুল হাসান পাপন।

বিসিবি সভাপতি বলেন, ‘এই অর্জনের পর আমরা সিদ্ধান্ত নিয়েছি একটি আন্ডার টোয়েন্টিওয়ান ইউনিট গঠন করব। এই ইউনিটে দুই বছর থাকবে তারা। এ দুই বছরই প্রতি মাসে তাদের ১ লাখ টাকা করে দেওয়া হবে। যদি ভালো করে আরও বাড়িয়ে দেওয়া হবে। যা লাগে ওদের সব দেওয়া হবে।’

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here