• আইটি বিশ্ব

    দুই হাজার ফেসবুক আইডি হ্যাক করেন তারা

      প্রতিনিধি ৩ অক্টোবর ২০২১ , ৪:৩২:৪২ প্রিন্ট সংস্করণ

    ফেসবুক আইডি হ্যাক করে ছবি ও ভিডিও ছড়িয়ে দেয়ার নামে অন্তত দুই হাজার মেয়ের সঙ্গে প্রতারণা করেছে মাদারীপুরের শিবচরের শামিম, সজীব ও নোবেল। ভুক্তভোগী মেয়েদেরকে ভয় দেখিয়ে তারা আদায় করত টাকা। তিন সাইবার অপরাধীকে গ্রেপ্তারের পর বেরিয়ে আসে এমন তথ্য। বার বার একই অঞ্চলের যুবকদের এমন অপরাধে জড়িয়ে পড়ার বিষয়টি ভাবিয়ে তুলেছে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীকে।

    1

    এদিকে তৃতীয় শ্রেণির পড়াশোনায় বেশিদূর এগোতে না পারলেও সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ব্যবহারে বেশ দক্ষ হয়ে ওঠেন মাদারীপুরের শিবচরের শামীম সরদার ও সজিব খলিফা নামে দুই যুবক। সেই দক্ষতা তারা ভালো কাজে না লাগিয়ে অন্যের সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমের অ্যাকাউন্ট হ্যাক করার দিকে ঝুঁকে পড়েন। ওবায়দুর রহমান নোবেল নামে আরেক যুবক মুদি দোকান ছেড়ে যোগ দেন তাদের সঙ্গে। তারা সবাই এই দীক্ষা নেন ইউটিউব থেকে।

    এরপর চলে একের পর এক মেয়েদের ফেসবুক আইডি হ্যাক করে গোপনীয় ছবি ও ভিডিও নেয়া। পরে টাকা না দিলে হুমকি দেয়া হয় সামাজিকভাবে হেয় করার।

    গোয়েন্দাদের জালে ধরা পড়ার পর গ্রেপ্তারকৃতরা স্বীকার করে গত দুই বছরে প্রায় দুই হাজার মেয়ের ফেসবুক অ্যাকাউন্ট হ্যাক করেছে তারা।

    ভুক্তভোগীদেরই একজন নববধূ। জানালেন কীভাবে সাইবার অপরাধীরা তার আইডিতে ঢুকে জীবনটা বিষিয়ে তুলেছে।

    তিনি অভিযোগ করেন, একটা লিঙ্কের মাধ্যমে ফেসবুক লগইন করার কিছু সময় পর একটা আইডি থেকে তার এবং তার স্বামীর কিছু গোপনীয় ছবি পাঠানো হয়,এবং এগুলো দিয়ে তার কাছ থেকে টাকা দাবি করা হয়।

    গোয়েন্দারা জানান, সংঘবদ্ধ আরও কয়েকটি সাইবার অপরাধী চক্রের তথ্য পাওয়া গেছে। শীঘ্রই আনা হবে আইনের আওতায়।

    সাইবার স্পেশাল ও সিরিয়াস ক্রাইমের উপপুলিশ কমিশনার শরিফুল ইসলাম আরটিভি নিউজকে বলেন, মাদারীপুরে এখন পর্যন্ত দুই শতাধিক হ্যাকার পাওয়া গেছে, তদন্ত করতে গিয়ে তাদের কাছ থেকে জানা যায় যে আরও অনেক হ্যাকার আছে সেখানে।

    সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ব্যবহারে আরও বেশি সচেতন হওয়ার পরামর্শ এ গোয়েন্দা কর্মকর্তার।

    তিনি জনসাধারণকে উদ্দেশ্য করে বলেন, যাচাই-বাছাই ছাড়া আপনারা কেউ কোনো লিঙ্কে ঢুকবেন না। ফেসবুকে গোপন ছবি বা ভিডিও রাখবেন না।